Homeখেলাধুলামানব জীবনে সুস্থতায় খেলাধুলার উপকারিতা

মানব জীবনে সুস্থতায় খেলাধুলার উপকারিতা

বর্তমান যুগে আমরা স্মার্টফোনের ব্যবহারে এত বেশি আসক্ত হয়ে পড়েছি যে এর বাইরে গিয়ে খেলাধুলার উপকারিতা এর কথা প্রায় ভুলতেই বসেছি। কারন এখন মোবাইলের মাধ্যমেই অনেক  রকমের গেইম খেলতে খেলতে অনেক সময় পার করে দেই। কিন্তু আমাদের জন্য খেলাধুলা যে করা কতটা প্রয়োজন আমরা তা দিন দিন ভুলে যাচ্ছি। এতে আমরা তো ক্ষতির মুখোমুখি হচ্ছি, সেই সাথে আমাদের পরবর্তি প্রজন্মকে ও ক্ষতির দিকে ঠেলে দিচ্ছি।

খেলাধুলার উপকারিতা
খেলাধুলার উপকারিতা

খেলাধুলার উপকারিতা

খেলাধুলা আমাদের শারীরিক ভাবে সুস্থ থাকতে যেমন প্রয়োজন, ঠিক তেমনি মানষিকভাবে সুস্থ থাকতে হলেও খেলাধুলা প্রয়োজন। আর এটি যে শুধু ছোটদের জন্য দরকারি, তেমনটা কিন্তু একদমই নয়। ছোট এবং বড় সকলের জন্যই খেলাধুলা অনেক উপকারি। আর তাই ছোটদের খেলাধুলার প্রয়োজনীয়তা বুঝাতে গিয়ে নিজেদের ব্যাপরটা ভুলে গেলে চলবে না।

  • আপনার কাজের সময়ের মাঝে কমপক্ষে আধা ঘন্টা সময় বের করে নিন খেলার জন্য এবং সেই সাথে আপনার পরিবার প্রিয়জনসহ সকলকে এই ব্যাপারে উদবুদ্ধ করুন।আরও পড়ুন : ৫ টি সেরা ঘরোয়া বিউটি টিপস
  • খেলাধুলাকে আপনার বাধ্যগত কাজ হিসেবে না নিয়ে, নিজের শখ এবং প্রতিদিনের আনন্দ উৎস হিসেবে গ্রহন করুন। এতে করে আপনার শরীর এবং মন দুটোই থাকবে আনন্দে পরিপূর্ণ।
  • আপনি আপনার পরিবারের সাথে চাইলে খেলাধুলার মাধ্যমে সময় কাটাতে পারেন, এতে করে আপনার পরিবারের সাথে আনন্দে সময় কাটানোর পাশাপাশি পারিবারিক সম্পর্কগুলোও আরো বেশি মধুর হয়ে উঠবে।
  • আপনি চাইলে দৌড় প্রতিযোগিতা, সাতার কাটা, সাইকেল চালানো, এই ধরনের খেলাগুলো খেলতে পারবেন আপনার পরিবারের সদস্যদের সাথে। এছাড়াও তাদের সাথে হাটতে পারেন, প্রাকৃতিক সৌন্দর্য উপভোগ করতে পারেন।এছাড়া খেলাধুলা আমাদের অনেক রকমের রোগ থেকেও মুক্তি দিতে সাহায্য করে থাকে। চলুন সেগুলো জেনে নেওয়া যাক…

শারীরিক সুস্থতায় খেলাধুলার উপকারিতা

  • এটি আমাদের হৃদপিন্ড সুস্থ রাখে। হৃদপিন্ড সুস্থ রাখতে এবং একে সচল রাখতে খেলাধুলা দরকার, কারন খেলাধুলার মাধ্যমে উত্তেজনায় হৃদপিন্ড অনেক বেশি পরিমানে রক্ত পাম্প করে থাকে। এই কাজটির ফলে আমাদের হৃদপিন্ড সুস্থ থাকে।
  • খেলাধুলা ডায়বেটিস নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে থাকে। ডায়বেটিস রোগীদের জন্য এটি  খুব ভাল কাজ করে থাকে। নিয়মিত খেলাধুলা করলে ইনসুলিন সঠিকভাবে কাজ করে থাকে।
  • মানবদেহে অতিরিক্ত ক্যালরি নিঃশেষ হয় খেলাধুলার মাধ্যমে এবং ওজন ঠিক রাখতেও সাহায্য করে।
  • খেলাধুলার ফলে উচ্চরক্তচাপ কমে। উচ্চ রক্তচাপের কারনে নানা রকম হৃদপিন্ডের সমস্যা দেখা দেয় এবং এটি প্রাননাশের কারন হয়ে দাঁড়ায়। নিয়মিত খেলাধুলার কারনে হৃদপিন্ড ও রক্ত গহ্বর গুলো ভালো থাকে।
  • খেলাধুলা এবং ব্যায়াম নিয়মিত করার ফলে দেহের কোলেস্টেরল লেভেল ঠিক থাকে।
  • রক্ত সঞ্চালন ঠিক রাখার জন্যও খেলাধুলা করা প্রয়োজন। কারন রক্ত সঞ্চালনের ফলে মানবদেহে সকল অঙ্গগুলোতে খাদ্যের পুষ্টিগুন পৌছাতে পারে। আর খেলার সময় শরীরে রক্ত সঞ্চালন বেশি হয়ে থাকে। এতে করে দেহে রক্তের এবং হিমোগ্লোবিনের পরিমান বেড়ে যায়।
  • খেলাধুলা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে ও সাহায্য করে। কারন খেলাধুলার সময় শ্বেত রক্তকণিকার সংখ্যা বৃদ্ধি পায়। আর সেই জন্য মানবদেহের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাও বৃদ্ধি পায়।
  • এছাড়াও খেলাধুলার সময় প্রচুর ঘামের মাধ্যমে শরীর থেকে বহু বিষাক্ত উপাদান ও টক্সিন বের হয়ে যায়। হাড় ও মাংসপেশি গঠনে সাহায্য করতে খেলাধুলার ভুমিকা অনস্বীকার্য।
  • খেলাধুলার সময় পেশিগুলোর ব্যবহার হয়ে থাকে বেশি। তাই আমাদের পেশি আরো অনেক শক্তিশালী হয়ে ওঠে এবং হাড়ের ঘনত্ব বৃদ্ধি পেতে থাকে। আপনার মন ভালো রাখতে খেলাধুলা বিশেষ ভুমিকা রাখে। এবং প্রতিদিনের কাজে একটি সুশৃঙ্খল ভাব নিয়ে আসতে সাহায্য করে।

পরিশেষে একটা কথাই বলা প্রয়োজন তা হল সকল কিছুরই একটি নিয়ম-শৃঙ্খলা থাকে আর তা বজায় রেখেই আমাদের কাজ করতে হয়। খেলাধুলার ক্ষেত্রেও ঠিক তাই। নিয়ম মেনে খেলাধুলা না করে এলোমেলোভাবে খেলাধুলা করলে আমাদের লাভের চাইতে বরং ক্ষতিই বেশি হবে। তাই খেলাধুলায়ও সঠিক নিয়ম মেনে চলুন এবং সুস্থ থাকুন। ধন্যবাদ।

Rahmannasimahttps://dokandaari.xyz
খুব ছোট বেলা থেকেই লেখালেখির খুব নেশা। তাই লেখতে ভালবাসি। আমি আতিকুর রহমান।ইনফরমেশন মেডিকেল অফিসার হিসেবে কর্মরত আছি। কিছু টিপস এবং অনলাইনে আয় বিষয়ে সঠিক গাইডলাইন সবার মাঝে ছড়িয়ে দেয়ার জন্য ব্লগিং এ জড়িত হয়েছি। ধন্যবাদ
RELATED ARTICLES

1 COMMENT

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

nineteen − eighteen =

- Advertisment -
Google search engine

Most Popular